December 7, 2022

একি অদ্ভূত দর্শন ছাগল না হনুমান

1 min read

 নিউজ ডেক্স,বর্তমানের কথা দেখতে ছাগল, কিন্ত মুখটা হনুমানের মতো। আজব এই ছাগ শিশুকে ঘিরে রীতিমতো চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে ভারতের পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের উত্তর ২৪ পরগনা জেলার অশোকনগরে। অশোকনগরের কাকপুল এলাকার বাসিন্দা পাপিয়া দাস। তাঁর পোষা ছাগলে গত রবিবার দুটি বাচ্চা প্রসব করে। যারমধ্যে একটি বাচ্চা সুস্থ ও স্বাভাবিক হলেও অপর বাচ্চাটি হয়েছে কিম্ভুতদর্শন।ছাগ শিশুটির চোখের জায়গায় নেই চোখ। দুটি চোখ রয়েছে কপালের বেশ খানিকটা উপর একটি বৃত্তের মধ্যে। দেখলে যমজ চোখ বলে মনে হবে। ছাগ শিশুটির স্বাভাবিক লম্বাটে মুখটিও উধাও। মুখটা দেখতে অনেকটাই হনুমানের মতো। মুখের বাঁদিক থেকে ছয়-সাত ইঞ্চি লম্বা জিহ্বা বেরিয়ে রয়েছে। ছাগ শিশুটি জন্মানোর পর থেকেই সে খেতে পারছিলো না দেখে পাপিয়া দাসের পরিবারের লোকারা ফিডার বোতলে করে দুধ খাইয়ে তাকে সুস্থ রেখেছে।অদ্ভূত দর্শন এই ছাগ শিশুর কথা চারদিকে ছড়িয়ে পড়তেই এখন রোজ ভীড় বাড়ছে পাপিয়া দাসের বাড়িতে। পাপিয়া দাস জানান, তাঁর পোষা ছাগলে দুটি বাচ্চা দেয় সম্প্রতি। তাদের মধ্যে একটি বাচ্চা এই অদ্ভূত দর্শনের হয়েছে। মুখটা অদ্ভূত হওয়ায় ছাগ শিশুটি প্রথম থেকেই তার মায়ের দুধ খেতে পারছিলো না। ফলে বোতলের দুধ খাইয়ে ছাগ শিশুটিকে সুস্থ রেখেছেন তারা। এদিক আজব এই ছাগল শিশুকে ঘিরে এলাকায় কৌতুহলের পারদ ক্রমশ চড়ছে। অনেকেই এখন ছাগ শিশুটির নাম রেখেছে ‘ছাগহনু’। আর এই কিম্ভুতকিমাকার ছাগহনু দেখতে মানুষের ভীড় সামাল দিতে এখন সকাল সন্ধ্যে রীতিমতো জেরবার দশা পাপিয়া দাস ও তার পরিবারের।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *