August 30, 2022

কালিয়াগঞ্জ পৌরসভার উদ্যোগে এবার দিনের বেলায় জ্বলছে হাইম্যাক্স আলো।

1 min read

কালিয়াগঞ্জ পৌরসভার উদ্যোগে এবার দিনের বেলায় জ্বলছে হাইম্যাক্স আলো।

তন্ময় চক্রবর্তী শুভ আচার্য :-আপনি কি জানেন দিনের আলোতে এবার পথ বাতি জ্বলছে শহরে। আর যা দেখে পথচলতি মানুষরা মুচকি হেসে বলছে বেচে থেকে আরো অনেক কিছু আমাদের দেখে যেতে হবে। রাতে অনেক সময় আমরা আলো পাই না অথচ দিনের বেলায় ও সূর্যের আলোর সঙ্গে সঙ্গে পৌরসভার উদ্যোগে এবার হাইম্যাক্স আলো জ্বলতে শুরু করেছে শহরের বুকে।

শুধু একদিন দুদিন নয় বেস কয়েকদিন হয়ে গেলেও এ ব্যাপারে পৌর কর্তৃপক্ষ এখনো পর্যন্ত এই সমস্যার সমাধান করতে পারলেন না। ফলে পৌরসভার উপর মানুষ কিছুটা হলেও ক্ষোভ প্রকাশ করেছে।রাতে যদি কোন কারনে বিদ্যুৎ না থাকে তাহলে ত্রাহি ত্রাহি রব উঠে যায় চারদিকে। কিন্তু দিনের বেলাতেও এখন আলো জ্বলছে শহরের এদিক ওদিকে। দিনের পর দিন সেই আলো জ্বলে থাকলেও ভ্রুক্ষেপ নেই কালিয়াগঞ্জ পৌর প্রশাসনের।

 

পৌর প্রশাসনের দাবি এই আলোতে নাকি টাইমার সিস্টেম খারাপ হয়ে যাওয়ার জন্যই এই দশা। খুব শীঘ্রই তা ঠিক হয়ে যাবে। প্রশ্ন একটাই দিনের আলোতে এইভাবে হাই পাওয়ারের হাইম্যাক্স আলো আর কতদিন জ্বলবে। সাধারণ নাগরিকরা এবার প্রশ্ন ছুড়ে দিল পৌর প্রশাসনের উপর। যখন সাধারন মানুষের ঘরে ঘরে বিদ্যুতের বিল অস্বাভাবিক হারে আসছে ঠিক তখন বিদ্যুতের অপচয় হয়ে যাচ্ছে দিনের পর দিন দিনের আলোতেই শহরের বিভিন্ন জায়গায়। এমন দৃশ্যই ধরা পরল কালিয়াগঞ্জ এর প্রাক্তন কমিশনার তথা প্রাক্তন পৌর প্রশাসক শচীন সিংহ রায়ের ঠিক বাড়ির পাশেই মন মোহন স্কুলের চত্বরে।তবে আশার আলো কালিয়াগঞ্জ পৌরসভার উপ পৌর পতি ঈশ্বর রজক কিন্তু বললেন খুব তাড়াতাড়ি এই সমস্যা মিটে যাবে। টেকনিক্যাল কিছু সমস্যার থাকায় এমন সমস্যা হচ্ছে ।শহরের বেশ কিছু জায়গায়।

এদিকে দিনের বেলায় রাতের আলো পৌরসভার দেওয়াকে কেন্দ্র করে এবার কটাক্ষ করতে ছাড়েননি কালিয়াগঞ্জ বিজেপি শহর মন্ডল এর সভাপতি গৌরাঙ্গ দাস। তিনি বলেন সাধারণ মানুষরা যখন অস্বাভাবিক বিদ্যুতের বিল নিয়ে সমস্যায় পড়ছেন বিভিন্ন জায়গায় ।ঠিক তখন খোদ কালিয়াগঞ্জ পৌরসভা রাতের আলো দিনে দিয়ে হাজার হাজার সরকারি টাকা অপচয় করছেন যা সম্পূর্ণ বেআইনি। অবিলম্বে যাতে পৌর প্রশাসন এ ব্যাপারে ব্যবস্থা নেয় সে ব্যাপারে গৌরাঙ্গ বাবু পৌর কর্তৃপক্ষের কাছে অনুরোধ করেন।তবে যাই হোক না কেন অবিলম্বে যাতে পৌর কর্তৃপক্ষ এ ব্যাপারে নজর দেন সেটাই অনুরোধ রইল।

Leave a Reply

Your email address will not be published.