August 13, 2022

কালিয়াগঞ্জ পুরভোটে একটি আসনও সংখ্যালঘুদের প্রতিনিধিদের জন্য না থাকায় অভিমান ১৭ নম্বর ওয়ার্ডের সংখ্যালঘু সম্প্রদাযের

1 min read

কালিয়াগঞ্জ পুরভোটে একটি আসনও সংখ্যালঘুদের প্রতিনিধিদের জন্য না থাকায় অভিমান ১৭ নম্বর ওয়ার্ডের সংখ্যালঘু সম্প্রদাযের

তপন চক্রবর্তী, কালিয়াগঞ্জ,১১ফেব্রুয়ারি:রাজ্যের সাথে তাল মিলিয়ে কালিয়াগঞ্জ শহরেও দুয়ারে পৌর ভোট চলে এসেছে।আগামী ২৭ শে ফেব্রুয়ারি কালিযাগঞ্জ পৌর সভার অধীনে থাকা জনতা জনার্দন তাদের পছন্দের কাজের মানুষদের আশিবাদ করতে চলেছেন।কালিয়াগঞ্জ পৌর সভা নির্বাচনে ১৭ নম্বর ওয়ার্ডের উত্তর চিড়াইল পাড়ার বাসিন্দা মৌলানা আব্দুল মালিক তার দীর্ঘ দিনের অভিমানের কথা চেপে না রাখতে পেরে বলেই ফেললেন রাজ্যের তৃণমূল সরকার সংখ্যা লঘু সম্প্রদায়ের উন্নয়নে নানান কথা বললেও কালিয়াগঞ্জ পৌর নির্বাচনে ১৭ নম্বর ওয়ার্ড সংখ্যা লঘু অধ্যুষিত এলাকা হলেও সেখান থেকে একজন সংখ্যালঘু প্রতিনিধিকে প্রার্থী করার কথা চিন্তা ভাবনা করা হয়না।

 

শুক্রবার সন্ধ্যায় এই প্রতিবেদককে মৌলানা আব্দুল মালিক বলেন ১৭ নম্বর ওয়ার্ডে ১৮শো ভোটারের মধ্যে ১২ শোর বেশি সংখ্যা লঘু সম্প্রদাযের মানুষের বসবাস।সেখানে তৃণমূল দল থেকে একজন শিক্ষিত সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের যুবককে অবশ্যই স্থান দেওয়া উচিৎ ছিল বলেই তিনি মনে করেন।তিনি বলেন আমরা সবাই ভারতবাসী।আমরা এই রাজ্যে মিলেমিশে একাকার হয়ে চলি।সেই কারণেই আমাদের সম্প্রদায়ের একজন প্রতিনিধি থাকলে আমাদের এলাকা থেকে সেই সংখ্যা লঘু ভাইটিকে আমরাই তৃণমূলের দলের হয়ে জয়ী করে কালিয়াগঞ্জ পৌর সভায় উপহার দিতে পারতাম।এর ফলে আমাদের সম্প্রদায়ের মানুষ প্রচন্ড খুশি হতে পারতো বলে তিনি মনে করেন।তাদের এলাকার অনেক শিক্ষিত যুবকরা আছেন যারা তৃণমূলের আদর্শে বিশ্বাসী।তাদেরকেও এই কর্মযজ্ঞে সুযোগ করে দিলে দলের ভাবমূর্তি বরঞ্চ আরো বেশি ছাড়া কম হতনা বলেই তিনি মনে করেন।সরকারের পৌরসভার ভোটের আগামী রোস্টারে যাতে ১৭নম্বর ওয়ার্ড সংখ্যালঘু সম্প্রদায়ের শিক্ষিত কর্মঠ যুবকরা স্থান পেতে পারে তার ব্যবস্থা হবে বলেই তিনি বিশ্বাস করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.