August 15, 2022

প্ল্যাস্টিক ক্যারিব্যাগ ও থার্মোকল ব্যবহার বন্ধ করে পেপার ও ব্যাগে করে দেওয়া হচ্ছে ক্রয়সামগ্রী

1 min read
বর্নালী সরকার, বালুরঘাটঃ গত বৃহস্পতিবার থেকে বালুরঘাট শহরে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হয়েছে প্ল্যাস্টিক ক্যারিব্যাগ ও থার্মোকল ব্যবহারের উপর। ৪০ মাইক্রোনের নীচে প্ল্যাস্টিক ক্যারিব্যাগ ব্যবহার করার সময় ধরা পড়লে ক্রেতার কাছ থেকে ৫০ টাকা ও বিক্রেতার কাছ থেকে ২০০ টাকা জরিমানা করা হবে বলে জানানো হয়েছে পৌরসভার পক্ষ থেকে। এই নিয়ে বালুরঘাট পৌরসভার পক্ষ থেকে গোটা শহর জুড়ে অনেক আগেই মাইকিং করা হয়েছে। ইতিমধ্যে জানা গিয়েছে, বালুরঘাট তহবাজার ও সাহেব কাছারি বাজারে ব্যবসায়ীরা প্ল্যাস্টিকের ব্যাগ দেওয়া বন্ধ করেছে। পেপার বা ব্যাগে করে দেওয়া হচ্ছে ক্রয় করা দ্রব্য সামগ্রী।
রাজ্যের অন্যান্য জেলার পাশাপাশি দক্ষিণ দিনাজপুরেও দেদারে বিক্রি ও ব্যবহার হচ্ছিল ৪০ মাইক্রোনের নীচের প্ল্যাস্টিক ক্যারিব্যাগ ও থার্মোকল। উষ্ণায়নের ফলে প্রতিনিয়ত বাড়ছে দূষণের পরিমাণ। এমত অবস্থায় প্ল্যাস্টিক বা থার্মোকল ব্যবহার নিষিদ্ধ করা হয় রাজ্যের অন্যান্য সমস্ত জেলায় ও শহরে। দক্ষিণ দিনাজপুরের সদর শহর বালুরঘাটেও বিগত দিনে বেশ কয়েকবার নিষিদ্ধ করা হয়েছিল ৪০ মাইক্রোনের নীচের প্ল্যাস্টিক ক্যারিব্যাগ ও থার্মোকলের বিক্রি এবং ব্যবহার। ধরপাকড়ও শুরু হয় উদ্যোগ নেওয়ার কয়েকদিনের মধ্যে। তবে সময় যত গড়িয়েছে সব কিছুই যেমনকার তেমনই হয়ে গিয়েছে। 
কিছুদিন আগেও শহরের সর্বত্র বিপুলভাবে বিক্রি ও ব্যবহার হতে থাকে নিষিদ্ধ প্ল্যাস্টিক ক্যারিব্যাগ ও থার্মোকল। নজরদারির অভাবে প্ল্যাস্টিক ক্যারিব্যাগ বা থার্মোকল কোনোটারই বিক্রি ও ব্যবহার সম্পূর্ণ বন্ধ করা সম্ভব হয়নি। তাই ফের একবার বালুরঘাট শহরে ৪০ মাইক্রোনের নীচে প্ল্যাস্টিক ক্যারিব্যাগ ও থার্মোকলের ব্যবহার নিষিদ্ধ করেছে বালুরঘাট পৌরসভা। 
এই নিয়ে পৌরসভা, ক্লাব ও বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন লাগাতার প্রচার চালিয়ে গিয়েছে সমস্ত শহর জুড়ে। অবশেষে গত বৃহস্পতিবার অর্থাৎ ১লা মার্চ থেকে বালুরঘাট শহরে সম্পূর্ণভাবে নিষিদ্ধ করা হয়েছে প্ল্যাস্টিক ও থার্মোকলের বিক্রি ও ব্যবহার। ব্যবসায়ী সমিতির পক্ষ থেকে পৌরসভার এই উদ্যোগকে স্বাগত জানানো হয়েছে। এছাড়াও প্ল্যাস্টিক ক্যারিব্যাগ ও থার্মোকল বন্ধ করতে শহরের ১০ হাজার পড়ুয়া নিজেদের অভিভাবকদের পোস্টকার্ড দেয়। যাতে ক্যারিব্যাগ ব্যবহারের অপকারিতা উল্লেখ থাকে। পাশাপাশি জেলা প্রশাসন ও বিভিন্ন স্বেচ্ছাসেবী সংস্থা পৌরসভার সাথে যুক্ত হয়েছে বলে জানা গিয়েছে
এই বিষয়ে বালুরঘাট পৌরসভার চেয়ারম্যান রাজেন শীল জানিয়েছেন, গত ১ তারিখ থেকে বালুরঘাটে প্ল্যাস্টিক ক্যারিব্যাগ ও থার্মোকলের বিক্রি ও ব্যবহারের উপর নিষেধাজ
্ঞা জারি করা হয়েছে। নজরদারিও চালানো হচ্ছে সমস্ত শহরে। গোপনে কোথাও প্ল্যাস্টিক ক্যারিব্যাগ ও থার্মোকল বিক্রি হচ্ছে কি না এবং তা ব্যবহার করা হচ্ছে কি না তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন রাজেনবাবু।

Leave a Reply

Your email address will not be published.