August 18, 2022

মুকুলের কাঁধে বর্তানো হল এক গুরু দ্বায়িত্ব পঞ্চায়েত ভোটের কথা মাথায় রেখে ?

1 min read

প্রীতম সাঁতরা : দল বদল করেছেন বহু দিন হয়েছে। কিন্তু এতদিন দলের কোনো গুরুপূর্ণ দ্বায়িত্ব দেওয়া হয়নি মুকুলের কোটায়। কিন্তু পঞ্চায়েত ভোটের কথা মাথায় রেখে মুকুলের কাঁধে বর্তানো হল এক গুরু দ্বায়িত্ব। তাঁর জন সংযোগ করার দক্ষতাকে কাজে লাগাতে রাজ্য বিজেপি নির্বাচনী কমিটির আহ্বায়কের পদে বসানো হল তাঁকে। শুধু তাঁর জন সংযোগ করার দক্ষতাকে কাজে লাগো হচ্ছে সে কথা বলা অবশ্য খুব একটা থিক হবে না। কারণ। ২০০৯ লোকসভা নির্বাচন ও ২০১১ বিধানসভা নির্বাচনে তৃণমূলের জয়ের পিছনে অন্যতম কারিগর ছিলেন মুকুল। সেই অভিজ্ঞতাকেও পঞ্চায়েত ভোটে কাজে লাগাতে চাইছে বঙ্গ বিজেপি।

শনিবার ন্যাশনাল লাইব্রেরির অডিটোরিয়ামে আয়োজিত হয়েছিল রাজ্য বিজেপি সম্মেলন। সেখানেই কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের উপস্থিতিতে মুকুলের পদ নির্ধারিত হয়। মুকুলের পাশাপাশি পঞ্চায়েত ভোটের আগে গুরুত্ব বাড়ল শমীক ভট্টাচার্য, রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ, রাহুল সিনহাদেরও। শমীক ভট্টাচার্যকে করা হয়েছে মুকুলের ডেপুটি। অর্থাৎ তাঁকে দেওয়া হয়েছে সহ-আহ্বায়কের পদ। এছাড়াও পঞ্চায়েত ভোটে দাগ কাটতে মড়িয়া পদ্ম শিবিরের তরফ থেকে প্রতি বুথে পঞ্চায়েত সম্মেলন করা হবে বলে জানানো হয়েছে। পরিবর্তন আনা হয়েছে দুতি জেলার সভাপতি পদে। এদিন দুই সভাপতির পদ কেড়ে নিয়ে এক রনংদেহী রূপের এক আগাম বার্তা যেন দিয়ে রাখল বিজেপি নেতৃত্ব। কারন সম্মেলন শেষে প্রেস কনফারেন্সের মাধ্যমে কড়া বার্তা দেওয়া হয়েছে অন্যান্য জেলা সভাপতিদেরও।              

Leave a Reply

Your email address will not be published.