March 3, 2024

পুষ্টিগুণে সবাইকে টেক্কা দেবে এই ঢেমসি, ‘এই’ একটি শস্যই মহৌষধি, পালাবে কত রোগ!

1 min read

পুষ্টিগুণে সবাইকে টেক্কা দেবে এই ঢেমসি, ‘এই’ একটি শস্যই মহৌষধি, পালাবে কত রোগ!

ভাত, মাছ, রুটি, দুধ, ডিম, সবজি ও ফলের প্রায় সব পুষ্টি উপাদান রয়েছে উত্তরবঙ্গের এই বিশেষ শস্য ফসল ঢেমশিতে। জানুন উপকারিতা।ভাত, মাছ, রুটি, দুধ, ডিম, সবজি ও ফলের প্রায় সব পুষ্টি উপাদান রয়েছে উত্তরবঙ্গের এই বিশেষ শস্য ফসল ঢেমশিতে। জানুন উপকারিতা।ভাতের চেয়েও অনেক বেশি পুষ্টিকর বাকহুইট বা ঢেমসি! কীভাবে এই ঢেমসি খাবেন জানেন? উপকারিতাই বা কী? ভাত, মাছ, রুটি, দুধ, ডিম, সবজি ও ফলের প্রায় সব পুষ্টি উপাদান রয়েছে উত্তরবঙ্গের এই বিশেষ শস্য ফসল ঢেমশিতে।

পৃথিবীর বহু উন্নত দেশ চিন, জাপান, আমেরিকা-সহ নানা দেশের পাশাপাশি উত্তরবঙ্গের বিভিন্ন জেলাতেও এই ধেমসি চাষের জন্য উৎসাহ বাড়াচ্ছে কৃষি বিজ্ঞান কেন্দ্র।চোপড়ার কৃষিবিজ্ঞান কেন্দ্রের পরামর্শ মতো বিভিন্ন গ্রামেগঞ্জে শুরু হয়েছে এই ঢেমসির চাষ। এই দানাদার ফসল ঢেমসি বা Buck Wheat-এর চাল এবং আটাতে রয়েছে অতিমাত্রায় প্রোটিন, মিনারেল এবং ফাইবার। এছাড়াও এতে রয়েছে ক্যালসিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম, ম্যাঙ্গানিজ, কপার, ফসফরাস,পটাশিয়াম, সোডিয়াম, জিংক, ভিটামিন (B1,B2,B3,B6,B12) ও সেলেনিয়াম-সহ নানা পুষ্টিকর উপাদান।এই ঢেমসি সম্পর্কে বিশেষজ্ঞ ডাক্তার দেবাশিস মাহাতো জানান, ঢেমসির চাল বা আটা খেলে আমাদের ডায়াবেটিক, ব্লাড প্রেশার, অ্যাজমা, হার্টের রোগের ঝুঁকি কমে। এই ঢেমসি গর্ভবতী মা ও শিশুদের জন্যও ভীষণ উপকারী। এই ধেমসির বীজ দিয়ে আটা তৈরি করেও খাওয়া যায়। এছাড়া হাড়ক্ষয় রোধ ও ক্যানসার প্রতিরোধেও ভীষণ সহায়তা করে।ঢেমসির গাছের পাতা শাক হিসেবেও খেতে পারেন। এই শাক শিশুদের শরীরে আয়রন ও হিমোগ্লোবিনের মাত্রা বাড়াতেও সহায়তা করে। শুধু তাই নয়, এই ঢেমসি গাছের আঁশ কোষ্ঠকাঠিন্য নিরাময়ে ভীষণ উপকারি। জানা যায়, এই ঢেমসির আটা ৩০০ থেকে ৪০০ টাকা কেজি দরে বাজারে বিক্রি হয়। তাই আপনি আপনার খাদ্য তালিকায় রাখতে পারেন বহু পুষ্টিগুণে ভরা এই ঢেমসি শাক বা আটা-সহ যে কোনও খাবার।

 

 

 

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *